নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

রক্তদান শিবির নিয়েও তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব, বিধায়কের সামনেই একে অপরকে পেটাল চেয়ার দিয়ে

বাসন্তীঃ শাসক দল তৃণমূল বারবারই গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব নিয়ে বিপাকে পড়েছে। আর এবার আরও একবার সেই গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে চিত্র ফিতে উঠল। এবার বাসন্তীতে তৃণমূলে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব এতটাই চরমে উঠল যে, বিধায়কের সামনেই একে অপরকে চেয়ার ছুঁড়ে মারা শুরু করে দেয় তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা। গোটা ঘটনা ঘিরে এলাকা তুমুল উত্তেজনা ছড়ায়।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, বাসন্তীর কাঁঠালবেড়িয়া গ্রামে এদিন একটি রক্তদান শিবিরের আয়োজন করা হয়েছিল তৃণমূলের তরফ থেকে। এই অনুষ্ঠানে তৃণমূলে নেতা, কর্মী ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় তৃণমূল বিধায়ক শ্যামল মণ্ডল। আর বিধায়কের সামনেই তৃণমূলের দুই দলের মধ্যে বেঁধে যায় তুমুল গণ্ডগোল।

দুই পক্ষের মধ্যে পরিস্থিতি এতটাই উত্তেজক হয়ে ওঠে যে, একে অপরকে চেয়ার ছুঁড়ে মারা থেকে হাতাহাতিও করে। এই ঘটনায় তৃণমূলের কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হন। তাঁদের সবাইকে প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয় চিকিৎসার জন্য।

যদিও, এটাকে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব মানতে নারাজ তৃণমূলের স্থানীয় বিধায়ক শ্যামল মণ্ডল। তিনি পরিস্কার জানিয়েছেন যে, এটা বিরোধীদের অপপ্রচার ছাড়া আর কিছুই নয়। শ্যামলবাবু জানান, ‘এখানে কোনও গণ্ডগোল হয়নি। সামান্য বিক্ষিপ্ত ঘটনা ঘটেছে মাত্র। আর এই নিয়েই বিরোধীরা অপপ্রচার শুরু করে দিয়েছে।” বলে দিই, বাসন্তীতে শাসক দলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব নতুন কিছু নয়। এর আগে তৃণমূলেরই দুই দলের মধ্যে গোলাগুলিও চলেছে।

Related Articles

Back to top button