Press "Enter" to skip to content

সমাজবাদী পার্টি করত ছেলে বিকাশ, দাবি মায়ের! অভিযোগ অস্বীকার প্রাক্তন শাসক দলের

শেয়ার করুন -

 লখনউঃ ছয়দিন উত্তর প্রদেশের পুলিশের চোখে ধুলো দিয়ে ঘুরে বেড়িয়েছে কুখ্যাত অপরাধী বিকাশ দুবে (Vikas Dubey)। এমনকি উত্তর প্রদেশ থেকে মধ্যপ্রদেশে যেতেও সফল হয়েছিল এই গ্যাংস্টার। এরপর গতকাল সকালে উজ্জয়নের মহাকাল মন্দিরের সামনে থেকে বিকাশকে গ্রেফতার করে মধ্যপ্রদেশ পুলিশ। মন্দিরের সামনে দাঁড়িয়ে চেঁচিয়ে চেঁচিয়ে বলছিল আমি আমি বিকাশ দুবে কানপুর ওয়ালা। এরপরই পুলিশ এসে তাঁকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারির পরেও মিডিয়ার সামনে নিজের নাম ফলাও করে নিচ্ছিল বিকাশ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া বিকাশ দুবের স্ত্রী রীচা দুবের সমাজবাদী পার্টির সদস্যতা প্রমাণ। যদিও আমাদের পক্ষে এই প্রমাণ যাচাই করা সম্ভব হয়নি।

মধ্যপ্রদেশে গ্রেফতার হওয়ার পর তৎপর হয় ইউপি সরকার। সাথে সাথে ইউপি পুলিশ রওনা দেয় উজ্জয়নের উদ্দেশ্যে। আরেকদিকে মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান আর উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের মধ্যে ফোনেও এই বিষয়ে কথাবার্তা হয়ে যায়। মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী কুখ্যাত অপরাধী বিকাশ দুবেকে ইউপি পুলিশের হাতে তুলে দিতে রাজি হয়।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া বিকাশ দুবের স্ত্রী রীচা দুবের সমাজবাদী পার্টির সদস্যতা প্রমাণ। যদিও আমাদের পক্ষে এই প্রমাণ যাচাই করা সম্ভব হয়নি।

কিন্তু মধ্যপ্রদেশ থেকে উত্তর প্রদেশে আসার সময় বিকাশ দুবেকে নিয়ে আসা UP STF এর কনভয় দুর্ঘটনাগ্রস্ত হয়ে পড়ে। মিডিয়া এবং পুলিশ রিপোর্ট অনুযায়ী, বিকাশ দুবে সেই সুযোগে পালানো চেষ্টা করেছিল। কিন্তু STF এর তৎপরতায় সেটা সম্ভব হয়নি। পুলিশের গুলিতে নিকেশ হয় সাতদিন ধরে খবরের শিরোনামে থাকা কুখ্যাত অপরাধী বিকাশ দুবে। তবে এই এনকাউন্টার নিয়ে উঠছে অনেক প্রশ্ন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া বিকাশ দুবের স্ত্রী রীচা দুবের সমাজবাদী পার্টির সদস্যতা প্রমাণ। যদিও আমাদের পক্ষে এই প্রমাণ যাচাই করা সম্ভব হয়নি।

আরেকদিকে বিকাশ দুবের রাজনৈতিক যোগ নিয়ে বেশ কয়েকদিন ধরেই চলছিল জল্পনা। আর সেই জল্পনার অবসান ঘটান বিকাশ দুবের মা সরলা দেবী। একদিন আগে সরলা দেবী দাবি করেন যে, তাঁর ছেলে বিকাশ দুবে সমাজবাদী পার্টির (Samajwadi Party) সাথে যুক্ত ছিল।। যদিও উত্তর প্রদেশের প্রাক্তন শাসক দল সমাজবাদী পার্টি বিকাশের মায়ের এই দাবি সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলে জানায়। তবে সোশ্যাল মিডিয়ায় ২০১৭ এর একটি ভিডিও ভাইরাল হয়, যেখানে দাবি করা হয় যে, বিকাশ দুবেকে বিজেপির বিধায়করা সাহায্য করেছে। তবে বিকাশের মায়ের দাবিতে সেই ভিডিওর সত্যতা নিয়ে অনেক প্রশ্ন ওঠে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া বিকাশ দুবের স্ত্রী রীচা দুবের সমাজবাদী পার্টির সদস্যতা প্রমাণ। যদিও আমাদের পক্ষে এই প্রমাণ যাচাই করা সম্ভব হয়নি।

আরেকদিকে বিকাশের সাথে কস্মিনকালেও তাদের সাথে কোন সম্পর্ক ছিল না বলে জানিয়েছে সমাজবাদী পার্টি। এমনকি বিকাশের বিরুদ্ধে কড়া শাস্তিরও দাবি করা হয় তাদের পক্ষ থেকে। এছাড়াও গতকাল বিকাশ দুবের গ্রেফতারিকে সাজানো ঘটনা বলে দাবি করেছিল কংগ্রেস। যুব কংগ্রেসের প্রেসিডেন্ট একটি ভিডিও প্রকাশ করে দাবি করেন যে, পুলিশের সাথে বহাল তবিয়তে হেঁটে যাচ্ছে বিকাশ দুবে, তাই এই গ্রেফতারি শুধুমাত্র আই ওয়াশ ছাড়া আর কিছুই না। তবে এখন গ্রেফতারি না, বিকাশ দুবের এনকাউন্টার নিয়ে উঠছে নানান প্রশ্ন।

শুধু বিকাশ দুবেই না, বিকাস দুবের স্ত্রী রীচা দুবেও নাকি সমাজবাদী পার্টির সদস্য এবং ছোটখাটো নেত্রী ছিলেন বলে দাবি করা হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। আর সেই সংক্রান্ত কিছু পোস্টার, লেটার হেড, দলের সদস্যতা গ্রহণের স্লিপও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। যদিও এই সমস্ত তথ্য আমাদের পক্ষে যাচাই করা সম্ভব হয়নি। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, যদি কোন দলের হাত বিকাশের মাথায় নাই থাকত, তাহলে এত বছর ধরে কি এরকম অপরাধের সাম্রাজ্য গড়ে তুলতে পারত সে?