Press "Enter" to skip to content

যোগ্য সন্মান দিচ্ছে না দল! প্রতিবাদে নাইটি পরে ঘুরে বেরালেন তৃণমূলের প্রভাবশালী নেতা তথা পূর্ত কর্মাধ্যক্ষ

শেয়ার করুন -

রতুয়াঃ ‘দল আমাকে এভাবেই রেখেছে” তৃণমূলের প্রতি আক্ষেপ প্রকাশ করে প্রকাশ্য রাস্তায় নাইটি পরে ঘুরে বেরালেন দাপুটে নেতা শামসুল হক। বুধবার সকালে স্থানীয় তৃণমূল নেতা শামসুলবাবুকে এভাবে নাইটি পরে পাড়ার রাস্তায় ঘুরে বেরাতে দেখে অবাক হয় সবাই। লোকজন ওনাকে ঘিরে বেশ মজাও করেন। আর তখন সবাই ওনার ছবি আর ভিডিও তুলতেও ব্যস্ত হয়ে যান। শামসুলবাবু বলেন, এই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছেড়ে দাও সবাই দেখুক।

ওনাকে যখন প্রশ্ন করা হয় যে, তিনি কেন এরকম নাইটি পরে রাস্তায় ঘুরে বেরাচ্ছেন? তখন তিনি প্রথমে বলেন, ‘বাড়ির ছোটরা মজা করে আমাকে নাইটি পরিয়েছে।” এরপর তিনি আবার নিজের ছবি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করার কথা বলেন। ওনাকে সোশ্যাল মিডিয়ায় ওনার ভিডিও পোস্ট করার কারণ জিজ্ঞাসা করলে তিনি বলেন, ‘দল আমাকে এভাবেই রেখেছে।”

প্রসঙ্গত, প্রায় দিনই তৃণমূলের কোনও না কোনও নেতা দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করে দল ছাড়ছেন আর বিজেপিতে গিয়ে যোগ দিচ্ছেন। সেই ক্রমে শামসুলবাবুর এহেন মন্তব্যে জল্পনার সৃষ্টি হয় আবার। এখন সবার মনে একটাই প্রশ্ন যে, তাহলে কি জনপ্রিয় নেতা শামসুলবাবুও তৃণমূল ছাড়ছেন?

স্থানীয়রা জানান, রতুয়া বিধানসভা কেন্দ্রে দিনরাত এক করে তৃণমূলে সংগঠন তৈরি করেছেন শামসুল হক। তবে, উনি যতই খাটুক না কেন, নির্বাচন এলে শামসুলবাবুর কথা আর কেউ মনে রাখেনা। সবাই তখন ব্যস্ত হয়ে যায় বড়বড় নেতাদের নিয়ে। শামসুলবাবুর মতো মানুষ সেই অন্ধকারেই থেকে যান। শামসুল হকের অনুগামীরা জানান, তিনি এই বিধানসভা অঞ্চলে টিকিট পাওয়ার যোগ্য। কিন্তু দল ওনার দিকে ঘুরেও তাকায় না।

রতুয়ার পূর্ত কর্মাধ্যক্ষ হলেন শামসুল হক। গতবারের পঞ্চায়েত নির্বাচনে তিনি তৃণমূলের হয়ে নির্বাচনে লড়েন এবং জেলা পরিষদের সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন। অনেকের মতেই শামসুলবাবু এই সন্মানের অনেক বেশি যোগ্য এবং প্রাপ্য। কিন্তু দল সেটা দেখেনা। আর সেই কারণে তিনি এভাবে রাস্তায় বেরিয়ে দলের প্রতি ক্ষোভ জাহির করছেন।