টাকা পয়সানতুন খবরভারতবর্ষ

মাসে মিলবে ১ লাখ টাকার পেনশন, অবসর জীবনের চিন্তা হবে দূর করবে কেন্দ্রের এই স্কিম

নয়া দিল্লিঃ প্রবীণ নাগরিকদের জন্য এবার বিরাট সুখবর। বার্ধক্যের সময়ে যাতে অর্থনৈতিক ভাবে কোনো দুর্বলতা না থাকে সেই কারণে এবার নতুন একটি যোজনা শুরু করছে সরকার। বর্তমানে ৬০ বছরের বেশি বয়সীদের জন্য “PradhanMantri Vaya Vandana Yojana” শুরু করা হয়েছে। এর যোজনার অধীনে, বার্ষিক ১,১১,০০০ টাকা পর্যন্ত পেনশন পাওয়া যেতে পারে।

এর আগে এই পেনশন যোজনার মেয়াদ ২০২০ সালের ৩১ মার্চ পর্যন্ত থাকলেও পরবর্তীকালে তা ২০২৩ সালের মার্চ মাস পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। এই স্কিমে যোগদানের সর্বনিম্ন বয়স হল ৬০ বছর৷ অর্থাৎ ৬০ বছর বা তার বেশি বয়সী নাগরিকরা এতে বিনিয়োগ করতে পারবেন। এই যোজনায় বিনিয়োগের অধীনে কোনো সর্বোচ্চ বয়সসীমা নেই।

এই স্কিমে একজন ব্যক্তি সর্বোচ্চ ১৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ করতে পারেন। সমগ্র স্কিমটি পরিচালনার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ভারতীয় জীবন বীমা নিগমের (LICI) ওপর। এই যোজনায় পেনশন পেতে গেলে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ বিনিয়োগ করতে হবে। বিনিয়োগ করার পরেই গ্রাহকেরা মাসিক, ত্রৈমাসিক, অর্ধবার্ষিক বা বার্ষিক পদ্ধতিতে পেনশন বেছে নিতে পারেন।

এই স্কিমের অধীনে, প্রতি মাসে ১০০০ টাকার পেনশনের জন্য ১,৬২,১৬২ টাকা বিনিয়োগ করতে হবে। পাশাপাশি, এই স্কিমের সর্বাধিক মাসিক পেনশন হল ৯,২৫০ টাকা, ত্রৈমাসিক হিসেবে ২৭,৭৫০ টাকা, অর্ধবার্ষিক হিসেবে ৫৫,০০০ টাকা এবং বার্ষিক পেনশন ১,১১,০০০ টাকা।

এই যোজনাটি পরিষেবা কর এবং জিএসটি থেকে গ্রাহকদের মুক্তি দেবে এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল যে, কোনো গুরুতর অসুস্থতা বা স্ত্রীর চিকিৎসার জন্য বিনিয়োগকারীরা সময়ের আগে এই টাকা তুলতে পারেন। এই স্কিমে বিনিয়োগের জন্য, প্যান কার্ডের একটি জেরক্স, ঠিকানার প্রমাণপত্রের একটি জেরক্স এবং ব্যাঙ্কের পাসবুকের প্রথম পৃষ্ঠার একটি জেরক্স থাকা বাধ্যতামূলক৷

এছাড়াও, এই স্কিমে গ্রাহকদের জন্য একটি ঋণ সুবিধাও রয়েছে। এতে, গ্রাহকেরা পলিসির ৩ বছর পরে এই যোজনাতে ঋণ নিতে পারেন। সর্বাধিক ঋণের পরিমাণ ক্রয় মূল্যের ৭৫%-এর বেশি হওয়া যাবেনা। তবে, এই স্কিমটি সরকারের অন্যান্য পেনশন স্কিমের মতো করের সুবিধা প্রদান করে না।

Related Articles

Back to top button